Home | খেলাধূলা | দুর্দান্ত ব্যাটিং নৈপুণ্য প্রদর্শন তামিম ও আল-আমিনের

দুর্দান্ত ব্যাটিং নৈপুণ্য প্রদর্শন তামিম ও আল-আমিনের

ক্রীড়া ডেস্ক : দুর্দান্ত ব্যাটিং নৈপুণ্য প্রদর্শন করলেন তানজিদ হাসান তামিম ও আল-আমিন। দুজন মিলে শাসন করলেন জিম্বাবুয়ের বোলারদের। দুজনের ব্যাট থেকেই এলো সেঞ্চুরি। অধিনায়ক আল-আমিন ১৪৫ বলে ১০০ করে অপরাজিত থাকেন। অন্যদিকে, তানজিদ হাসান তামিম খেলেছেন ওয়ানডে স্টাইলে। ৮৬ বলে ব্যক্তিগত সেঞ্চুরি পূরণ করার পর ৯৯ বলে ১৪টি চার ও ৫টি ছক্কার সাহায্যে ১২৫ রান করে অপরাজিত থাকেন বিশ্বকাপজয়ী এই ব্যাটসম্যান।

বিকেএসপিতে বুধবার ড্র হওয়ার মধ্য দিয়ে শেষ হয়েছে বিসিবি একাদশ ও জিম্বাবুয়ের মধ্যকার দুইদিনের প্রস্তুতি ম্যাচ। ম্যাচে মঙ্গলবার পুরো দিন ব্যাট করেছিল জিম্বাবুয়ে। বুধবার তারা আর ব্যাট না করে বিসিবি একাদশকে ব্যাটিংয়ে আমন্ত্রণ জানায়। বিসিবি একাদশ ব্যাটিংয়ে নেমে ৫ উইকেটে ২৮৮ রান সংগ্রহ করে দিনের খেলা শেষ করে।

স্বাগতিকরা ব্যাটিংয়ে নেমে শুরুতে একের পর এক উইকেট হারিয়ে চাপে পড়ে। দলীয় ৬৯ রানে পড়ে যায় ৫ উইকেট। দলীয় ২০ রানে ওপেনার নাঈম শেখ ফিরে যান। দলীয় ২৫ রানে ফেরেন ওয়ানডাউনে নামা মাহমুদুল হাসান জয়। দলের রান যখন ৩৯ তখন বিদায় নেন শাহাদাৎ হোসেন। এরপর দলীয় ৬৮ রানে পারভেজন হোসেন ও ৬৯ রানে আকবর আলী প্যাভিলিয়নের পথ ধরেন। পরে ২১৯ রানের জুটি গড়ে অপরাজিত থাকেন তানজিদ-আল আমিন।

মঙ্গলবার ম্যাচের প্রথম দিন সকালে টস জিতে ব্যাট করার সিদ্ধান্ত নেয় জিম্বাবুয়ে। দিন শেষে তাদের সংগ্রহ দাঁড়ায় ৭ উইকেটে ২৯১ রান। এদিন বল হাতে ঝলক দেখান বিসিবি একাদশের শাহাদাৎ হোসেন। ৮ ওভার বল করে ১৬ রান দিয়ে তিনটি উইকেট শিকার করেন তিনি। পেসার শরিফুল ইসলাম শিকার করেন একটি উইকেট। এছাড়া স্পিনার আল-আমিন নেন দুইটি উইকেট।

জিম্বাবুয়ের ব্যাটসম্যানদের মধ্যে দুইজন হাফ সেঞ্চুরি করেন। ৭০ রান করে আউট হন ওপেনার কাসুজা। ৫৪ করে অপরাজিত থাকেন মুম্বা।

ব্যাটিংয়ে নেমে দারুণ সূচনা করে জিম্বাবুয়ে। উদ্বোধনী জুটিতে ১০৫ রান করে ফেলে জিম্বাবুয়ে। দাপুটে এমন শুরুর পরও শাহাদাৎ-আল আমিনদের বোলিং তোপে চাপে পড়ে যায় তারা। প্রথম আঘাতটি হেনেছিলেন আল-আমিন। ওপেনার মাসভাউরেকে ফিরিয়ে দিয়েছিলেন।

এদিন সপ্তম বোলার হিসেবে বল করতে আসেন শাহাদাৎ। এরপরই শুরু হয় তার বোলিং তোপ। ব্যক্তিগত দ্বিতীয় ওভারে ক্রেইগ আরভিনকে আউট করেন তিনি। এরপর ব্যক্তিগত ষষ্ঠ ওভারের প্রথম বলে রেজিজ চাকাভা ও তৃতীয় বলে টিনোতেন্দা মুতোমবোদজির উইকেট তুলে নেন তিনি। যার ফলে দলীয় ১৪৬ রানে পঞ্চম উইকেট হারায় সফরকারীরা।

এরপর কাসুজা ও মারুমাকেও দ্রুত ফিরিয়ে দেয় বিসিবি একাদশ। তবে, অষ্টম উইকেট জুটিতে মুম্বা ও এনডিলোভুর দৃঢ় ব্যাটিংয়ে এগিয়ে যায় জিম্বাবুয়ে। ৬৫ রানের জুটি গড়ে দিন শেষে অপরাজিত থাকেন তারা।

একটি টেস্ট, তিনটি ওয়ানডে ও দুইটি টি-টোয়েন্টি ম্যাচ খেলতে বাংলাদেশ সফরে এসেছে জিম্বাবুয়ে। আগামী ২২ ফেব্রুয়ারি মিরপুরে শুরু হবে বাংলাদেশ ও জিম্বাবুয়ের মধ্যকার সিরিজের একমাত্র টেস্ট ম্যাচ। মূল সিরিজ শুরুর আগে কন্ডিশনের সঙ্গে মানিয়ে নিতে বিসিবি একাদশের সঙ্গে একটি প্রস্তুতি ম্যাচ খেলল তারা।

সংক্ষিপ্ত স্কোর

ফল: ম্যাচ ড্র

জিম্বাবুয়ে প্রথম ইনিংস: ২৯১/৭ (৯০ ওভার)

(মাসভাউরে ৪৫, কাসুজা ৭০, মুদজিঙ্গানইয়ামা ১৭, আরভিন ১০, মারুমা ৩৪, চাকাভা ১৩, মুতোমবোদজি ০, মুম্বা ৫৪*, এনডিলোভু ২৫*; মুকিদুল ০/৩৯, শরিফুল ১/৪৫, সুমন ০/২৯, আমিনুল ০/৭৭, আল-আমিন ২/৪০, রিশাদ ০/২৬, শাহাদাৎ ৩/১৬)।

বিসিবি একাদশ প্রথম ইনিংস: ২৮৮/৫ (৫৯.৩ ওভার)

(নাঈম শেখ ১১, ইমন ৩৪, জয় ১, শাহাদাৎ ২, আল-আমিন ১০০*, আকবর ১, তানজিদ ১২৫*; মুম্বা ১/৩৭, টিশুমা ১/২৩, এমপোফু ০/৪৩, এনডিলোভু ২/৫১, মুতোমবোদজি ১/৪৫, মুদজিঙ্গানইয়ামা ০/১৯, নিয়াউচি ০/২১, তিরিপানো ০/৩৫

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

উদ্বোধনী ম্যাচে মুম্বইকে পাঁচ উইকেটে হারাল চেন্নাই

ক্রীড়া ডেস্ক : মরুশহরে আইপিএলের উদ্বোধনী ম্যাচে জিতল চেন্নাই সুপার কিংস। শনিবার মহেন্দ্র সিংহ ...

আজ থেকে আইপিএল, মহারণে শুরু মহাযজ্ঞ

ক্রীড়া ডেস্ক : রোহিতের নেতৃত্বে ব্যাটিং: উপরের দিকের ব্যাটিং খুবই শক্তিশালী। ‘মাসল্ম্যান’ না ...