ব্রেকিং নিউজ
Home | আন্তর্জাতিক | হিজাব পরতে পারবে তুর্কি নারীরা

হিজাব পরতে পারবে তুর্কি নারীরা

Turkiআন্তজার্তিক ডেস্ক : চাইলে এখন থেকে ‘হিজাব’ পরেই সরকারি সংস্থায় কাজ করতে পারবেন তুর্কি নারীরা। মঙ্গলবার এই নতুন নিয়ম প্রকাশিত হল তুরস্কের সরকারি গেজেটে।
মুস্তাফা কামাল আতাতুর্কের আমল থেকে নারী সরকারি কর্মীদের হিজাব পরার উপর নিষেধাজ্ঞা ছিল। মঙ্গলবার তা এভাবে তুলে দেয়ায় রক্ষণশীল মুসলিমরা খুশি হলেও, তুরস্কের উদারপন্থী সমাজের সমালোচনার মুখে পড়তে হয়েছে প্রধানমন্ত্রী তায়ইপ এর্দোগানকে।
ইতিহাস বলছে, ক্ষমতায় আসার পর থেকেই আইনি, রাজনৈতিক, অর্থনৈতিক, সামাজিক এবং সাংস্কৃতিক সংস্কারের মাধ্যমে উদারপন্থী জীবন-দর্শন তুরস্কে আমদানি করতে শুরু করেন মুস্তাফা কামাল আতার্তুক। যেমন ধর্মনিরপেক্ষতা।
তুরস্কের বেশিরভাগ মানুষ মুসলিম সম্প্রদায়ভুক্ত। তবু সংবিধানে তুরস্ককে ‘ধর্মনিরপেক্ষ’ দেশ হিসেবে বর্ণনা করা হয়। সরকারি দফতরের কর্মীরা যাতে ধর্মীয় পরিচিতির চিহ্ন বয়ে না বেড়ান, সে জন্য একটি ‘ডিক্রি’ জারি করেন আতার্তুক। এরপর থেকেই সরকারি ক্ষেত্রে যে সব নারী চাকরি করতে চান, তাদের হিজাব পরা মানা। নব্বই বছর ধরে এই নিয়মই মেনে আসছিল ধর্মনিরপেক্ষ তুরস্ক।
দেশের উপ-প্রধানমন্ত্রী বেকির বোজদাগ বলেছেন, “নিজের পছন্দমতো বেশভূষা পরার তথা নিজের ইচ্ছেমতো বাঁচার অধিকারে যে নিয়ম বাধা তৈরি করত, তা এখন ইতিহাস। এতো দিন অনেক মুসলিম নারীই ইচ্ছে থাকা সত্ত্বেও সরকারি সংস্থায় যোগ দিতে পারতেন না। কারণ, সেখানে চাকরি করতে গেলে ‘হেড স্কার্ফ’ পরা বন্ধ করতে হবে। যা কি না তাদের মতের পরিপন্থী। গণতন্ত্রে এটা মানা যায় না।’ তবে দেশটির বিচারবিভাগ ও সেনাবাহিনীর ক্ষেত্রে এই নিয়ম প্রযোজ্য হবে নয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

বিশ্ববাজারে তেলের ঘাটতি হয় তাহলে তা মেটাতে প্রস্তুত ওপেক : সুহাইল আল মাজরৌয়েই

ইন্টারন্যাশনাল ডেস্ক : ইরান-যুক্তরাষ্ট্রের চলমান উত্তেজনার মধ্যে যদি বিশ্ববাজারে তেলের ঘাটতি হয় ...

এবার ইরাককে কড়া ভাষায় হুমকি ট্রাম্পের

ইন্টারন্যাশনাল ডেস্ক : মার্কিন হামলায় ইরানের শীর্ষ জেনারেল কাসেম সোলায়মানি নিহতের পর ...