ব্রেকিং নিউজ
Home | ব্রেকিং নিউজ | হরতালে বোধোদয় না হলে কঠোর কর্মসূচি : জামায়াত

হরতালে বোধোদয় না হলে কঠোর কর্মসূচি : জামায়াত

jamatস্টাফ রিপোর্টার : দেশব্যাপী লাগাতার ৪৮ ঘণ্টা হরতালের পরও ক্ষমতাসীনদের বোধোদয় না হলে আরো কঠোর কর্মসূচির মাধ্যমে সারা দেশের মানুষ রাজপথে প্রতিরোধ গড়ে তুলবে বলে সরকারকে হুঁশিয়ার করেছে জামায়াতে ইসলামী।এছাড়া ৪৮ ঘণ্টা হরতালের প্রথম দিন স্বতঃস্ফূর্তভাবে পালন করায় দেশবাসীকে অভিনন্দন জানিয়ে হরতাল পালন অব্যাহত রাখারও আহ্বান জানিয়েছে দলটি।

 

হরতালের প্রথম দিন শেষে বুধবার রাতে এক বিবৃতিতে জামায়াতের ভারপ্রাপ্ত সেক্রেটারি জেনারেল মাওলানা রফিকুল ইসলাম খান এসব কথা বলেন।

 

তিনি দাবি করে বলেন, ‘দেশব্যাপী টানা ৪৮ ঘণ্টা হরতালের প্রথম দিন স্বতঃস্ফূর্তভাবে পালন করার মাধ্যমে দেশবাসী কাদের মোল্লাসহ সংগঠনের শীর্ষ নেতাদের হত্যার সরকারি ষড়যন্ত্র ও চক্রান্তের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ জ্ঞাপন করেছে। কারণ, জনগণ আব্দুল কাদের মোল্লার মুক্তি চায়।’

 

জামায়াতের ভারপ্রাপ্ত সেক্রেটারি জেনারেল বলেন, ‘জনগণের ঐক্যবদ্ধ প্রতিরোধে দিশেহারা হয়ে সরকার দেশের বিভিন্ন স্থানে জামায়াত, ছাত্রশিবির ও সাধারণ জনতার উপর নির্যাতন চালিয়েছে। মেহেরপুর, জামালপুর, বান্দরবান, কক্সবাজার ও টেকনাফসহ সারা দেশে জামায়াত ও ছাত্রশিবিরের প্রায় ৩ শতাধিক নেতা-কর্মীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। আর পুলিশের গুলিতে ঢাকা, চট্টগ্রাম, সাতক্ষীরা, মেহেরপুর, চাঁদপুর, সিরাজগঞ্জসহ দেশের বিভিন্ন স্থানে জামায়াত ও ছাত্রশিবিরের ২ শতাধিক নেতা-কর্মী আহত হয়েছে। এদের মধ্যে গুলিবিদ্ধ ১৫ জনের অবস্থা গুরুতর। এছাড়া সরকার ভ্রাম্যমান আদালতের মাধ্যমে ঢাকা মহানগরীর খিলগাও-এ শিবির কর্মী শফিউল্লাকে ১ বছর এবং কামাল হোসেনকে ৬ মাস কারাদণ্ড দিয়েছে।’

 

সরকারকে হুঁশিয়ার করে রফিকুল ইসলাম বলেন, ‘আপনারা জামায়াত নেতৃবৃন্দকে হত্যার যে নীল-নকশা প্রণয়ন করেছেন জনগণ তা কঠোরভাবে প্রতিহত করবে। আর ৪৮ ঘণ্টার হরতালের পরও আপনাদের বোধোদয় না হলে আরো কঠোর কর্মসূচির মাধ্যমে সারা দেশের মানুষ রাজপথে প্রতিরোধ গড়ে তুলবে। কারণ, বাংলাদেশের মানুষ আর কোনো রক্তপাত বরদাশত করবে না। দেশের রাজনৈতিক নেতৃবৃন্দকে মিথ্যা ও সাজানো মামলা দিয়ে হত্যা করা হবে আর জনগণ চেয়ে চেয়ে দেখবে- তা হতে পারে না। তাই জনগণই রক্তপিপাসু এ সরকারের হিংস্র থাবাকে গুড়িয়ে দেবে।’

 

কাদের মোল্লাকে হত্যা করার সরকারি চক্রান্ত ফাঁস হয়ে গেছে বলে দাবি করে তিনি বলেন, ‘সুপ্রীম কোর্ট রায় ঘোষণার পরই আইনমন্ত্রী, এ্যাটর্নি জেনারেল, আওয়ামী লীগ ও বামদলের নেতারা স্বল্পতর সময়ের মধ্যে আব্দুল কাদের মোল্লাকে ফাঁসিতে ঝুলানোর কথা ঘোষণা করেছেন। তারা বলেছেন, এ মামলায় কোনো রিভিউ আবেদন করা যাবে না। আমরা স্পষ্ট ভাষায় বলতে চাই, সংবিধান অনুযায়ী সুপ্রীম কোর্টের রায়ের বিরুদ্ধে রিভিউ করার অধিকার স্বীকৃত। যারা সংবিধানের ভুল ব্যখ্যা দিয়ে জনগণকে বিভ্রান্ত করে কাদের মোল্লাকে তড়িঘড়ি করে হত্যা করতে চায়, জনগণ রাজপথে তাদের দাঁত ভাঙ্গা জবাব দেবে। আর সংবিধান ও আদালতকে নিয়ে কোনো ধরনের বাড়াবাড়ি সহ্য করা হবে না।’

 

সরকারের উদ্দেশে রফিকুল ইসলাম খান বলেন, ‘এখনো সময় আছে। ষড়যন্ত্র ও চক্রান্ত বন্ধ করে আব্দুল কাদের মোল্লাসহ জামায়াতের শীর্ষ নেতাদেরকে মুক্তি দিয়ে শুভবুদ্ধির পরিচয় দিন। অন্যথায় জনতার আন্দোলনে আপনারা খড়কুটোর মতো উড়ে যাবেন।’

 

পুলিশের উদ্দেশে তিনি বলেন, ‘আপনারা প্রজাতন্ত্রের কর্মচারি। সুতরাং জনগণের উপর কোনো অত্যাচার-নির্যাতন চালাবেন না। আপনারা নিরপেক্ষভাবে সততার সাথে পেশাগত দায়িত্ব পালন করুন।’

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

মদনে জাতীয় সমবায় দিবস পালিত

সুদর্শন আচার্য্য, মদন (নেত্রকোণা)ঃ বঙ্গবন্ধুর দর্শন, সমবায়ে উন্নয়ন এই প্রতিপাদ্যটি সামনে রেখে ...

পর্তুগালে মুক্তি পাচ্ছে বাংলাদেশী সিনেমা “হাওয়া”

পর্তুগাল প্রতিনিধিঃ ১৫ই অক্টোবর হাওয়া পর্তুগালে বানিজ্যিক ভাবে মুক্তি পাচ্ছে বাংলাদেশী সিনেমা ...