Home | ব্রেকিং নিউজ | সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে যুদ্ধাপরাধী জামায়াত নেতাদের ছবি নিয়ে শিবিরের শ্লোগান

সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে যুদ্ধাপরাধী জামায়াত নেতাদের ছবি নিয়ে শিবিরের শ্লোগান

bangladesh islami chatra shibirস্টাফ রিপোর্টার: ১৮ দলীয় জোটের সমাবেশে মঞ্চ নির্মাণ শেষ হওয়ার আগেই মাঠের দখল নিতে বিশাল মিছিল নিয়ে সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে হাজির হয়েছে ইসলামী ছাত্র শিবির।
যে উদ্যানে একাত্তরে আত্মসমর্পণের দলিলে সই করেছিল পাকিস্তানি বাহিনী, বাঙালির স্বাধীন চেতনার প্রতীক হয়ে যেখানে জ্বলছে শিখা চিরন্তন, সেই সোহরাওয়ার্দীতে শিবিরকর্মীরা হাজির হয়েছে বাংলাদেশের স্বাধীনতার বিরোধিতাকারী ও যুদ্ধাপরাধী জামায়াত নেতাদের ছবি ও তাদের মুক্তির দাবি সম্বলিত ব্যানার নিয়ে।

 

‘শিবির, শিবির/ ডাইরেক্ট অ্যাকশন’ শ্লোগান দিতে দিতে সকাল ৯টার দিকে শিবির কর্মীদের কয়েকটি মিছিল সমাবেশস্থলে পৌঁছায়।

 

বিএনপির মহানগর সদস্য সচিব আবদুস সালাম জানান, বেলা ২টায় জনসভার কার্যক্রম শুরু হবে। বিকালে সমাবেশে যোগ দেবেন জোটনেত্রী খালেদা জিয়া।

উদ্যানের পূর্ব অংশে ইঞ্জিনিয়ার্স ইন্সটিটিউশনের সীমানার দেয়ালের পাশেই পশ্চিমমুখী মঞ্চ নির্মাণের কাজ চলছে। গুঁড়ি গুঁড়ি বৃষ্টির কারণে কাজ এগোচ্ছে ধীর গতিতে।

মঞ্চ নির্মাতারা আশা করছেন জুমার নামাজের আগেই তারা প্যান্ডেল টানানোর কাজ শেষ করতে পারবেন।

 

সকালে মিছিল নিয়ে এসে শিবিরের বিভিন্ন শাখার নেতা কর্মীরা সোহরাওয়ার্দী উদ্যানের ইঞ্জিনিয়ার্স ইনস্টিটিউট সংলগ্ন গেইটের সামনে অবস্থান নেয়। পরে ওই গেট সংলগ্ন মূল মঞ্চের সামনেও তাদের অবস্থান নিতে দেখা যায়।

 

গেইটের সামনে শিবিরের ঢাকা কলেজ শাখা একটি বড় ব্যানার ঝুলিয়ে দেয়। এছাড়া ভিতরে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়, ঢাকা মহানগর দক্ষিণসহ বিভিন্ন থানা কমিটির ব্যানার নিয়ে নেতা-কর্মীদের দাঁড়িয়ে থাকতে দেখা যায়।

মূল গেইটের বাইরে ইঞ্জিনিয়ার্স ইনস্টিটিউটের সামনে, ওভার ব্রিজের উপরেও অবস্থান নেয় শিবিরের নেতাকর্মীরা। ১১টার দিকে জামায়াতে ইসলামীর মিছিলও সমাবেশস্থলে পৌঁছায়।

জামায়াত-শিবিরের অধিকাংশ ব্যানারেই ‘তত্ত্বাবধায়ক সরকার পুনর্বহাল এবং কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দের নিঃশর্ত মুক্তির দাবিতে মহাসমাবেশ সফল করুন’ লেখা থাকলেও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় শাখার একটি ব্যানারে মানবতাবিরোধী অপরাধের দায়ে দণ্ডিত জামায়াত নেতাদের পাশাপাশি কারাগারে থাকা শিবির সভাপতির ছবি দেখা যায়।

 

সেখানে উপস্থিত শিবিরের কেন্দ্রীয় প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক মিজানুর রহমান বলেন, ‘চারটি ইস্যুকে কেন্দ্র করে আমরা এই সমাবেশে এসেছি। তত্ত্বাবধায়ক সরকার পুনর্বহাল, অগণতান্ত্রিক ট্রাইব্যুনাল বাতিল, জামায়াতের কেন্দ্রীয় নেতাদের মুক্তি এবং শিবিরের কেন্দ্রীয় সভাপতি দেলোয়ার হোসেনের মুক্তি।’

সরকার ‘এক ধরনের ভীতি’ তৈরি করে শান্তিপূর্ণ সমাবেশে বাধা দিচ্ছে বলেও তিনি অভিযোগ করেন।

 

সমাবেশের জন্য সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে ১০০ মাইকও লাগানো হয়েছে। সেখানে বাজানো হচ্ছে ‘প্রথম বাংলাদেশ আমার শেষ বাংলাদেশ’সহ  বিএনপির দলীয় ও মুক্তিযুদ্ধের গান।

শিবির কর্মীরা উপস্থিত হওয়ার পর উদ্যানের আশেপাশে আরো সতর্ক অবস্থান নিয়েছে পুলিশ।

 

উদ্যানের চারপাশে ও মঞ্চের কাছাকাছি পুলিশ ও আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যরা রয়েছেন। মৎস্যভবন থেকে শাহবাগের এই সড়কে যান চলাচল সীমিত করে দেয়া হয়েছে।

শাহবাগ, শিশু পার্ক, ঢাকা ক্লাব মোড়, হাইকোর্ট গেট, মৎস্যভবন মোড়সহ পুরো এলাকাতেই রয়েছে পুলিশের সতর্ক উপস্থিতি।

 

পুলিশের একজন সহকারী কমিশনার নাম প্রকাশ না করার শর্তে বলেন, ‘নিরাপত্তার জন্য আমাদের সর্বোচ্চ প্রস্তুতি রয়েছে। যে কোনো ধরনের পরিস্থিতি মোকাবেলা করে আমরা নিরাপত্তা নিশ্চিত করব।’

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

করোনায় ১০ জনের মৃত্যু

স্বাস্থ্য ডেস্ক: বাংলাদেশে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে আরও ১০ জনের মৃত‌্যু হয়েছে। এ ...

বিলবাওকে হারিয়ে সুপার কাপ জিতল রিয়াল

স্পোর্টস ডেস্ক: সৌদি আরবের রিয়াদে স্প্যানিশ সুপার কাপের ফাইনালে অ্যাথলেটিক ক্লাব বিলবাওকে ...