Home | আন্তর্জাতিক | শ্রদ্ধা-ভালোবাসায় বাজপেয়ীর শেষকৃত্য সম্পন্ন

শ্রদ্ধা-ভালোবাসায় বাজপেয়ীর শেষকৃত্য সম্পন্ন

ইন্টারন্যাশনাল ডেস্ক : দিল্লির রাষ্ট্রীয় স্মৃতিস্থলে পূর্ণ রাষ্ট্রীয় মর্যাদায় সাবেক প্রধানমন্ত্রী অটল বিহারী বাজপেয়ীর শেষকৃত্য সম্পন্ন হয়েছে। মুখাগ্নি করেন তার পালিতা কন্যা নমিতা ভট্টাচার্য। শুক্রবার বিকেল ৫টায় স্মৃতিস্থল শ্মশানে গান স্যালুটে বাজপেয়ীকে শেষ শ্রদ্ধা জানান তিন বাহিনীর সদস্যরা।

শেষবারের মতো বাজপেয়ীকে শ্রদ্ধা জানাতে হাজির হয়েছিলেন দেশ-বিদেশের প্রতিনিধিরা। ভারতের রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দ, প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি, লোকসভার স্পিকার সুমিত্রা মহাজন, সাবেক উপ-প্রধানমন্ত্রী লালকৃষ্ণ আদভানি, কংগ্রেস সভাপতি রাহুল গান্ধী, বিজেপি সভাপতি অমিত শাহ’রা তাকে শেষ শ্রদ্ধা জানান।

ওই অনুষ্ঠানে আরও উপস্থিত ছিলেন ভুটানের রাজা জিগমে খেসর নামগিয়াল ওয়াংচুক, আফগানিস্তানের সাবেক প্রেসিডেন্ট হামিদ কারজাই, শ্রীলঙ্কার ভারপ্রাপ্ত পররাষ্ট্রমন্ত্রী লক্ষণ কিরিয়েল্লা, বাংলাদেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রী এএইচ মাহমুদ আলী, নেপালের পররাষ্ট্রমন্ত্রী প্রদীপ কুমার। বাজপেয়ীকে শ্রদ্ধার্ঘ জানিয়েছেন পাকিস্তান সরকারের প্রতিনিধিও।

শুক্রবার সকালে নয়াদিল্লির ৬এ কৃষ্ণ মেনন মার্গের বাসভবন থেকে অটল বিহারী বাজপেয়ীর দেহ পৌঁছায় দিল্লিতে বিজেপির নবনির্মিত সদরদপ্তরে। সেখানে তার গার্ড অব অনার দেয়া হয়। এরপরই সাধারণের শ্রদ্ধা জ্ঞাপনের জন্য খুলে দেয়া হয় দরজা।

সেখান থেকে শুরু হয় শেষযাত্রা। উদ্দেশ্য দিল্লির স্মৃতিস্থল। হাজারও মানুষের সঙ্গে অটল বিহারীর শেষযাত্রায় পায়ে হেঁটে শ্মশানে পৌঁছান প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। সঙ্গে ছিলেন বিজেপি সভাপতি অমিত শাহ। সাবেক প্রধানমন্ত্রীকে শেষ শ্রদ্ধা জানাতে হাজির ছিলেন লাখ লাখ মানুষ। প্রায় পৌনে দুই ঘণ্টার যাত্রার পর শুক্রবার বিকেল ৩টা ৪৫ মিনিটে যমুনার পাড়ে রাষ্ট্রীয় স্মৃতিস্থল শ্মশানে পৌঁছায় ভারতরত্ন বাজপেয়ীর দেহ।

হাজারও মানুষের সঙ্গে বাজপেয়ীর শেষযাত্রায় পায়ে হেঁটে শ্মশানে পৌঁছান প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি

এদিকে অটলবিহারী বাজপেয়ীর মৃত্যুতে সাতদিনের রাষ্ট্রীয় শোক ঘোষণা করেছে ভারত সরকার। সাবেক প্রধানমন্ত্রীর মৃত্যুতে শোক পালন করতে পশ্চিমবঙ্গ ছাড়া আরও বেশ কয়েকটি রাজ্যও ছুটি ঘোষণা করেছে। পূর্ণদিবস ছুটি ঘোষণা করেছে কর্নাটক, তামিলনাড়ু, পাঞ্জাব, উত্তরপ্রদেশ, ছত্তিসগড়, হরিয়ানা, ঝাড়খণ্ডসহ বেশ কয়েকটি রাজ্য। শুক্রবার রাজ্যের সব সরকারি স্কুল, কলেজ, সরকারি দপ্তরে ছুটি ঘোষণা করেছে বিহার সরকারও।

এছাড়া দেশের সব সরকারি দপ্তরে জাতীয় পতাকা অর্ধনমিত ছিল। অন্যদিকে এদিন ভারতে মার্কিন দূতাবাসে অর্ধনমিত ছিল সে দেশের জাতীয় পতাকা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

লালন শাহ কলেজে মাদক বিরোধী গনসচেতনতা মূলক আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত

মাহবুব মুরশেদ শাহীন, হরিণাকুণ্ডু (ঝিনাইদহ) : ঝিনাইদহের হরিণাকুণ্ডু সরকারি লালন শাহ কলেজে মাদক ...

বঙ্গবন্ধু গোল্ডকাপ ফুটবল টুর্নামেন্ট বাগেরহাট পৌরসভা চ্যাম্পিয়ন

বাগেরহাট প্রতিনিধি : বাগেরহাটে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান জাতীয় গোল্ডকাপ ...