Home | আন্তর্জাতিক | ভার্জিনিয়ার বর্ণবাদবিরোধী সমাবেশে রক্তাক্ত হামলা, জরুরি অবস্থা ঘোষণা

ভার্জিনিয়ার বর্ণবাদবিরোধী সমাবেশে রক্তাক্ত হামলা, জরুরি অবস্থা ঘোষণা

ইন্টারন্যাশনাল ডেস্ক :  মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের আমেরিকায় এবার এক শান্তিপূর্ণ বর্ণবাদবিরোধী মিছিল হামলার কবলে পড়েছে। বিভিন্ন আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যমের খবর থেকে জানা গেছে, শ্বেতাঙ্গ জাতীয়তাবাদীদের একটি মিছিল বর্ণবাদবিরোধীদের সমাবেশস্থলে এলে সংঘর্ষের সূচনা হয়। সে সময় শান্তিপূর্ণ সমাবেশের অংশগ্রহণকারীদের ওপর হামলে পড়ে একটি চলন্ত গাড়ি। ঘটনাস্থলে ১ জন নিহত এবং ১৯ জন আহত হন। সংঘর্ষের পর অঙ্গরাজ্যে জারি করা হয় জরুরি অবস্থা।

দাস প্রথার পক্ষে লড়েছিলেন, সম্প্রতি এমন এক কনফেডারেটপন্থী জেনারেলের মূর্তি অপসারণ করা হয়েছে। এর প্রতিবাদে শারলটেসভাইল শহরে শত শত শ্বেতাঙ্গ জাতীয়তাবাদী শনিবার মিছিল করেন। পাল্টা এক শান্তিপূর্ণ বিক্ষোভ সমাবেশও অনুষ্ঠিত হচ্ছিলো একই সময়ে। সেই সমাবেশেই হঠাৎ করে চলন্ত গাড়ি দিয়ে হামলা হয়।

ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসি এবং বার্তা সংস্থা রয়টার্স ‘শেতাঙ্গ বর্ণবাদী ও বর্ণবাদ বিরোধীদের সংঘর্ষ’ শিরোনামে এ সংক্রান্ত খবর প্রচার করেছে। বিবিসি ও রয়টার্সের প্রতিবেদনে মশাল হাতে শত শত শ্বেতাঙ্গ মিছিলে শ্লোগান দেন ‘ইহুদীরা আমাদের জায়গা নিতে পারবে না’ এবং ‘শ্বেতাঙ্গদের জীবনের মূল্য আছে।’  এই মিছিলের সময় বর্ণবাদ বিরোধী বিক্ষোভকারীদের সঙ্গে তাদের সংঘর্ষ হয়। সেখানেই ভীড়ের মধ্যে গাড়ি তুলে দেওয়া হয়।

ভার্জিনিয়ার বর্ণবাদবিরোধী সমাবেশে হামলা-৩

এদিকে ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম গার্ডিয়ান প্রতিবেদনের শিরোনামে বলেছে, শান্তিপূর্ণ প্রতিবাদের সমাবেশে গাড়ি তুলে দেওয়া হয়েছে। প্রত্যক্ষদর্শীরা গার্ডিয়ানকে জানিয়েছে, শেতাঙ্গদের আধিপত্যের প্রতিবাদে শান্তিপূর্ণ আন্দোলনে গাড়ি তুলে দেওয়া হয়। আর ভিডিওতে দেখা যায়, গাড়িটি অন্য গাড়িকে ধাক্কা দিচ্ছিলো এবং মানুষরা ছিটকে পড়ে যাচ্ছিলো। পরে সেই চালককে গ্রেফতার করা হয়েছে বলে জানিয়েছে কর্তৃপক্ষ।
ঘটনাস্থলে থাকা ফটোগ্রাফার প্যাট জ্যরেট বলেন, ‘একটি ধুসর গাড়ি একটি সেডান ও মিনিভ্যানে জোরে এসে ধাক্কা দেয়। মানুষগুলো যেন মুহূর্তেই উড়ে গেল। সবাই আতঙ্কিত হয়ে পড়ে। কাছাকাছি থাকা সবাই জানে একটা অবশ্যই সহিংস হামলা ছিলো। চালক পরে গাড়ি ঘুরিয়ে পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করে। তার গাড়ির সামনের পুরো অংশ ভেঙে গেছে।’ প্রত্যক্ষদর্শীদের মতে, চালক একজন শেতাঙ্গ ছিলো।

শান্তিপূর্ণ সমাবেশে হামলা আর সংঘর্ষের ঘটনায় একজন নিহত হওয়ার খবর জানিয়েছেন শার্লটসভিলের মেয়র মাইক সিঙ্গার। শ্বেতাঙ্গ জাতীয়বাদীদের এই মিছিলকে ‘বর্ণবাদী’ আখ্যা দিয়ে এর নিন্দা করেছেন তিনি। এক টুইটবার্তায় তিনি বলেন, ‘আমি খুবই মর্মাহত যে একজনকে প্রাণ হারাতে হয়েছে। আমি সবাইকে বাড়ি ফিরে যাওয়ার আহ্বান জানাই।’

সংঘর্ষের পরপরই যুক্তরাষ্ট্রের ভার্জিনিয়া অঙ্গরাজ্যের জরুরি অবস্থা জারি করেছে কর্তৃপক্ষ। পুলিশ বিভাগ জানায়, জরুরি অবস্থা জারি করার ফলে কর্তৃপক্ষ আইনশৃঙ্খলা বজায় রাখার জন্য অতিরিক্ত বাহিনী চাইতে পারবে।

ভার্জিনিয়ার বর্ণবাদবিরোধী সমাবেশে হামলা-২

মার্কিন সংবাদমাধ্যম সিএনএনকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে সহকারী মেয়র ওয়েজ বেলামি বলেন, ‘ইশ্বর আমাদের সহায় হোক। আমরা এর চেয়ে অনেক ভালো।’

প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প ঘটনার নিন্দা জানিয়ে বলেছেন, এই সংকট বহুমুখী। এক টুইট বার্তায় তিনি বলেন, ‘আমাদের সবাইকে একসঙ্গে থাকতে হবে এবং ঘৃণার প্রতিবাদ করতে হবে। যুক্তরাষ্ট্রে এমন সহিংসতার কোনও স্থান নেই। চলুন সবাই এক হই।’ ডোনাল্ড ট্রাম্প একে বহুমাত্রিক সংঘর্ষ বলে নিন্দা জানিয়েছেন। তবে সরাসরি আন্দোলনকারীদের নিন্দা জানানোয় সমালোচনার মুখে পড়ছেন।

যুক্তরাষ্ট্রের গৃহযুদ্ধের সময় দক্ষিণের অঙ্গরাজ্যগুলো দাস প্রথা টিকিয়ে রাখার পক্ষে লড়েছিল। অনেক অঙ্গরাজ্যেই এখনো দাস প্রথার পক্ষের কনফেডারেটপন্থীদের মূর্তি রয়েছে। এমনকি অনেক জায়গায় সরকারী ভবনে পর্যন্ত এখনো কনফেডারেট পতাকা উড়ানো হয়। তবে সাম্প্রতিক সময়ে বর্ণবাদ বিরোধীদের আন্দোলনের মুখে অনেক জায়গাতেই কর্তৃপক্ষ এ ধরণের মূর্তি অপসারণ করতে বাধ্য হচ্ছে। এতে শ্বেতাঙ্গ জাতীয়তাবাদীরা ক্ষুব্ধ হয়। তার প্রতিবাদে আয়োজিত একটি  মিছিল যখন ভার্জিনিয়া বিশ্ববিদ্যালয়ে থমাস জেফারসনের মূর্তির পাশ দিয়ে যাচ্ছিল, তখন সেখানে বর্ণবাদ বিরোধী বিক্ষোভকারীদের সঙ্গে সংঘর্ষ বেধে যায়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

Police bar Moudud from leaving home on Eid day in Noakhali, citing security reasons

Police have barred senior BNP leader Moudud Ahmed from leaving his home ...

ঈদের দিনেই আজ চারটি ম্যাচ..মাঠে নামছে আর্জেন্টিনা, ফ্রান্স..

বিশ্বকাপ ফুটবলের ৩য় দিনে আজ মাঠে গড়াচ্ছে ৪টি ম্যাচ। গ্রুপ সি ও ...