Home | ফটো সংবাদ | বোর্ডের সুপারিশেই আজ আদালতে যাননি খালেদা জিয়া

বোর্ডের সুপারিশেই আজ আদালতে যাননি খালেদা জিয়া

স্টাফ রিপোর্টার :  বঙ্গবন্ধু মেডিকেলে চিকিৎসাধীন বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার শারীরিক অবস্থা আগের চেয়ে ভালো। গঠিত মেডিকেল বোর্ডের পরামর্শে বিএনপিনেত্রীর পায়ের সিটি স্ক্যান করা হয়েছে। আর আদালতে যাওয়ার মতো ‘ফিট’ না থাকায় বোর্ডের সুপারিশে আদালতে যাননি তিনি।

সোমবার বিকালে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় (বিএসএমএমইউ) হাসপাতালের পরিচালক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল আব্দুল্লাহ আল হারুন এসব কথা বলেন।

তার আগে দুপুরে খালেদা জিয়ার পায়ে সিটি স্ক্যান ও মেরুদণ্ডে এক্স-রে করানো হয়। বিএনপিনেত্রীর পরীক্ষা-নিরীক্ষা শুরুর আগে থেকেই বিএসএমএমইউয়ের নিরাপত্তা বাড়ানো হয়। হাসপাতালের মুল ফটক ও কেবিন ব্লকের সামনে মোতায়েন করা হয় অতিরিক্ত পুলিশ।

বেলা পৌনে দুইটার দিকে কেবিন ব্লক থেকে সিটি স্ক্যান রুমে নেওয়া হয়। সেখানে তার পায়ে সিটি স্ক্যান করা হয়। পরে বিএনপি চেয়ারপারসনকে নেওয়া হয় এক্স-রে রুমে। দুপুর সোয়া দুইটার দিকে তাকে কেবিনে ফেরত নেয়া হয়।

আব্দুল্লাহ আল হারুন বলেন, ‘খালেদা জিয়ার চিকিৎসা চলছে। তিনি আগের চেয়ে ভালো আছেন। গঠিত মেডিকেল বোর্ডের পরামর্শেই চলছে পরীক্ষা-নীরিক্ষা। আর তাদের সুপারিশেই আজ আদালতে যাননি খালেদা।

‘মেডিকেল বোর্ড আমাকে বলেছে, উনি (খালেদা) আদালতে যাওয়ার মতো ফিট না। আমি আদালতকে তা জানিয়েছি।’

তিনি জানান, হাঁটা চলায় অসুবিধা হওয়ায় আজ খালেদা জিয়ার মেরুদণ্ডে এক্স-রে ও পায়ে সিটি স্ক্যান করানো হয়েছে। এর আগে সর্দি-কাশি বেড়ে যাওয়ায় গত গত বুধবার খালেদা জিয়ার বুকে সিটি স্ক্যান করানো হয়েছিল।

এদিকে দুপুরে জিয়া চ্যারিটেবল ট্রাস্ট দুর্নীতির মামলায় সাবেক প্রধানমন্ত্রী বেগম খালেদা জিয়াকে সাত বছরের কারাদণ্ড দিয়েছে ঢাকার বিশেষ আদালত। একই সঙ্গে জরিমানা করা হয়েছে ১০ লাখ টাকা, যা অনাদায়ে আরও ছয় মাস কারাগারে থাকতে হবে। সেই সঙ্গে কাকরাইলের যে জমি নিয়ে মামলা হয়েছে, সেটিও বাজেয়াপ্তের আদেশ দিয়েছে আদালত।

রায় ঘোষণার আগে খালেদা জিয়ার স্বাস্থ্য পরীক্ষা-নিরীক্ষা শুরুর আগেই থেকে বিএসএমএমইউ হাসপাতালের মুল ফটক ও কেবিন ব্লকের সামনে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়। নজরদারি জোরদার করা হয় হাসপাতালে আসা সাধারণ চিকিৎসাপ্রার্থীদের চলাফেরায়।

গত ৮ ফেব্রুয়ারি জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলায় ৫ বছরের সাজা নিয়ে রাজধানীর পুরনো কেন্দ্রীয় কারাগারে বন্দি খালেদা জিয়াকে গত ৬ অক্টোবর উন্নত চিকিৎসার জন্য বঙ্গবন্ধু মেডিকেলে ভর্তি করা হয়। হাসপাতালের ৬১২ নম্বর কেবিন ব্লকে চিকিৎসা চলছে বিএনপিনেত্রীর।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

মনোনয়ন তালিকা প্রায় চূড়ান্ত : কাদের

স্টাফ রির্পোটার : আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল ...

পাবনা জুড়ে ডাকাত আতঙ্ক

পাবনা প্রতিনিধি : পাবনায় একের পর এক ডাকাতির ঘটনায় আতঙ্কিত হয়ে পড়েছেন ...