Home | সারা দেশ | পীরগঞ্জে যৌতুকের দাবিতে নির্যাতন : স্বামী ও দেবরসহ গ্রেফতার ২

পীরগঞ্জে যৌতুকের দাবিতে নির্যাতন : স্বামী ও দেবরসহ গ্রেফতার ২

ছাদেকুল ইসলাম রুবেল,গাইবান্ধা প্রতিনিধি : রংপুরের পীরগঞ্জে যৌতুকের দাবিতে সাংবাদিকের বোনকে নির্যাতনের অভিযোগে স্বামী আব্দুল আলীম, দেবর এনামুলসহ ২ জনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। গ্রেফতারকৃত দারিদহ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষক আব্দুল আলিম ও তার ছোট ভাই এনামুল বগুড়া শিবগঞ্জ উপজেলার ময়দাহাটা ইউপি’র গোকর্ণ নাগারজান গ্রামের মৃত আইয়ুব আলীর ছেলে। পুলিশ ও এলাকাবাসী জানায়, বিগত ২০০৬ সালের ২০আগষ্ট পীরগঞ্জ উপজেলার রামপুরা গ্রামের আলহাজ্ব নুরুল ইসলাম মাস্টারের ২য় কন্যা নাহিদার ইয়াসমিন তিন্নির সাথে আব্দুল আলীমের বিয়ে হয়। বিয়ের পর হতে এ যাবত বিভিন্ন সময়ে সংসারের চাহিদায় ঘরের আসবাবপত্র, মোটরসাইকেল, পাঁকা বাড়ি নির্মাণ, চাকুরী ও অন্যান্য প্রয়োজনে কয়েক দফায় সাড়ে ৮ লক্ষাধিক টাকা প্রদান করে। পরবর্তিতে আবারও নগদ টাকার জন্য চাপ দিতে থাকে। এর মধ্যে তাদের ঘরে অথৈ(৩) ও তাথৈ(২) নামের ২টি কন্যা সন্তানের জন্ম নেয়। তারপরেও স্বামী-শ্বাশুড়ী ও দেবরদের মানষিক ও শারিরিক অত্যাচার অব্যাহত থাকে। অত্যাচারের মাত্রা বাড়তে থাকায় এক পর্যায়ে ২ শিশু সন্তানসহ তিন্নী বাবার বাড়ী চলে আসে।গত ১০/১১/২০১৪ ইং তারিখে বাদ মাগরিব অনুমান সাড়ে ৬টায় আব্দুল আলিম, ভাই আবুল হোসেন, এনামুল ও মা হাজেরা বেগমসহ আরও কয়েক ব্যক্তি মাইক্রোবাসযোগে রামপুরা গ্রামে এসে মেয়ের শাশুরী হাজেরা বেগম বৌকে নিজ বাড়িতে নিয়ে যাওয়ার প্রস্তাব করেন। এতে বাড়ীর লোকজন সম্মত হলে রাত্রি অনুমান পৈানে ৮টায় মাইক্রোবাস যোগে শিবগঞ্জ দারিদহের নাগারজানের উদ্দেশ্যে রওয়ানা হয়। মাইক্রোতে উঠামাত্র আলীমের দাবীকৃত ৩ লাখ টাকা দিতে কেন অস্বীকার করা হলো এ নিয়ে জেরার এক পর্যায়ে গাড়ীতে বসা সবাই তিন্নীকে কিল ঘুষি মারতে থাকে এবং শাশুরী গলা চেপে ধরেন। এক পর্যায়ে রংপুর-ঢাকা মহাসড়কের মকিমপুর নামক স্থানে তিন্নীকে মাইক্রোবাস থেকে নীচে ফেলে দেয় এবং সামান্য দুরে শিশুদ্বয়কেও ফেলে রেখে দ্রুত পলায়ন করে। পথচারীদের কাছে সংবাদ পেয়ে আহত তিন্নি ও সন্তানদের উদ্ধার করে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। ওই ঘটনায় গত ১৮ নভেম্বর তিন্নীর বাবা পীরগঞ্জ থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে মামলা করলে আজ পীরগঞ্জ ও শিবগঞ্জ থানার পুলিশ যৌথ অভিযান চালিয়ে আলিম ও এনামুলকে গ্রেফতার করে। উল্লেখ্য, নাহিদার ইয়াসমিন তিন্নি পীরগঞ্জ প্রেসক্লাবের সাবেক সভাপতি আব্দুল্লাহেল বাকি বাবলু ও সাংবাদিক মাজহারুল আলম মিলনের ছোট বোন। পীরগঞ্জ থানার ওসি ইসরাইল হোসেন ঘটনার সত্যতা স্বীকার করেছেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

মধ্যপাড়া কঠিন শিলা খনি সারাদেশে পাথর বাজারজাত করতে ৮ রেল স্টেশনে নির্মাণ করা হবে স্টক ইয়ার্ড

মুসলিমুর রহমান, পার্বতীপুর প্রতিনিধি : দিনাজপুরের পার্বতীপুরে অবস্থিত মধ্যপাড়া পাথর খনির উন্নতমানের ...

অন্তির শুভ জন্মদিন পালিত

ঝালকাঠি প্রতিনিধিঃ দৈনিক অজানা বার্তার সিনিয়র ষ্টাফ রিপোর্টার, দৈনিক দেশ জনপদ, সময়ের ...