Home | আন্তর্জাতিক | দুপচাঁচিয়ায় প্রশাসন-জামায়াত সমঝোতা বৈঠক

দুপচাঁচিয়ায় প্রশাসন-জামায়াত সমঝোতা বৈঠক

স্টাফ রিপোর্টার, ৪ মার্চ ২০১৩, বিডিটুডে ২৪ ডটকম : জেলায় দুপচাঁচিয়ার তালোড়া পৌরসভা কার্যালয়ে জামায়াত-শিবির নেতাদের সঙ্গে সমঝোতা বৈঠক করেছে স্থানীয় প্রশাসন। এতে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মামুনুর রশীদ দুপচাঁচিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মনিরুল ইসলাম উপস্থিত ছিলেন।

সোমবার বেলা সাড়ে ১২টায় তালোড়া পৌরসভা কার্যালয়ে অনুষ্ঠিত এ বৈঠক প্রায় দেড় ঘণ্টা ধরে চলে।

বৈঠকে আরো উপস্থিত ছিলেন- উপজেলা চেয়ারম্যান ও জামায়াত নেতা আব্দুল গণি মণ্ডল, উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান আব্দুস সামাদ প্রাং, তালোড়া পৌরসভার অতিরিক্ত পৌর প্রশাসক আমিরুল ইসলাম বকুল, তালোড়া  ইউপির সাবেক চেয়ারম্যান ও জামায়াত নেতা নজরুল ইসলাম, বিএনপি নেতা মোজাফফর রহমান ঠাণ্ডা, বিএনপি নেতা জলিল খন্দকার, উপজেলা জামায়াতের সভাপতি মনসুর আহমেদ, সেক্রেটারি জেনারেল মতিউর রহমান ও বিশিষ্ট ব্যবসায়ীরা।

বৈঠক চলাকালে ইউএনওর কাছে মোবাইলে জানতে চাইলে তিনি বলেন, ‘নজরুল সাহেব এবং ব্যবসায়ীদের সাথে একটা মিউচুয়াল আন্ডারস্ট্যান্ডিং (সমঝোতা) করার চেষ্টা করছি। মিটিংয়ে আছি, এখন বিস্তারিত কিছু বলতে পারব না।’

এদিকে দুপচাঁচিয়া পৌর সদরে সোমবার সকাল থেকে ১৪৪ ধারা জারি করা হয়েছে। তাই, দুপচাঁচিয়া থানা সদরে জামায়াতের কোনো মিছিল-মিটিং দেখা যায়নি। কিন্তু, দুপচাঁচিয়ায় কোনো কর্মসূচি পালন করতে না পারায় তালোড়া পৌরসভা এলাকায় সকাল থেকে জামায়াত নেতা নজরুল, জলিল ও ঠাণ্ডার নেতৃত্বে হাজার হাজার মানুষের মিছিল বের করা হয়।

প্রশাসনের ভাষ্য মতে, জামায়াতের সঙ্গে সমঝোতার বৈঠক হওয়ার মূল কারণ তালোড়া সদরে জামায়াত-শিবির যাতে আর অপ্রীতিকর কোনো ঘটনা না ঘটায়।

জানা গেছে, সোমবার প্রশাসন জামায়াতের যে নেতাদের সঙ্গে বৈঠক করেছে তাদের অনেকে গতকাল রোববার বগুড়ার দুপচাঁচিয়া পৌর এলাকায় বাংলাদেশের কমিউনিস্ট পার্টির (সিপিবি) সভাপতি অধ্যাপক আবুল বাশার ও আওয়ামী লীগ সভাপতি মিজানুর রহমান খান সেলিমের বাড়িতে-মার্কেটে হামলা, অগ্নিসংযোগ ও লুটপাটের সঙ্গে জড়িত বলে অভিযোগ রয়েছে।

এদিকে সোমবার তালোড়া স্টেশনের রেললাইনে গাছের গুড়ি ফেলে ট্রেন চলাচল বন্ধ করে দেয়া হয়েছে। ফলে বর্তমানে বগুড়া-সান্তাহারগামী সবধরনের ট্রেন চলাচল বন্ধ রয়েছে। অনেক ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে হামলা ও লুটপাটের খবর পাওয়া গেছে।

তালোড়া পৌরসভার অনেক ব্যবসায়ী তাদের সম্পদ ও জানমাল রক্ষার্থে প্রয়োজনীয় পুলিশ ফোর্স মোতায়নের দাবি ও তালোড়া পৌরসভা এলাকায় ১৪৪ ধারা জারির জোর দাবি জানিয়েছেন।

x

Check Also

অবশেষে বৈঠকে বসছে ভারত ও পাকিস্তান

ইন্টারন্যাশনাল ডেস্ক : দুই বছর পর সিন্ধুর জল বণ্টন নিয়ে মঙ্গলবার (২৩ মার্চ) ভারতের সঙ্গে ...

এক শটে বাংলার বাইরে ফেলব ওদের : মমতা

ইন্টারন্যাশনাল ডেস্ক : ভাঙা পা নিয়েই শেষ মুহুর্তের নির্বাচনি প্রচারে মাঠ গরম করছেন ...