ব্রেকিং নিউজ
Home | ব্রেকিং নিউজ | দিনাজপুরের হাসপাতালে ভর্তি ডেঙ্গু জ্বরে আক্রান্ত ৩৮জন রোগি

দিনাজপুরের হাসপাতালে ভর্তি ডেঙ্গু জ্বরে আক্রান্ত ৩৮জন রোগি

দিনাজপুর প্রতিনিধি : বৃহস্পতিবার হুইপ ইকবালুর রহিম এমপি দিনাজপুর এম আব্দুর রহিম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ২৪ ঘন্টা সকল প্রকার প্যাথলজিক্যাল পরীক্ষা সেবা চালু করনের উদ্বোধন ও ডেঙ্গুসহ বিভিন্ন রোগীদের চিকিৎসার খোজ খবর নেয়ার সময় এ সব কথা বলেন। দিনাজপুরে এম আব্দুর রহিম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ৩৮ জন ডেঙ্গু রোগী চিকিৎসাধীন রয়েছে। এরা সকলেই ঢাকা ফেরত বলে জানিয়েছেন চিকিৎসকরা।

ডেঙ্গু জ্বরে আক্রান্ত হয়ে দিনাজপুর এম.আব্দুর রহিম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ৩৮ জন রোগি চিকিৎসাধীন রয়েছে। আর সুস্থ্য হয়ে বাড়িতে ফিরেছে আরও ৫ জন রোগি। হাসপাতালে ভর্তি হওয়া রোগিদের বেশীরভাগই ঢাকা থেকে ডেঙ্গু জ্বরে আক্রান্ত হয়ে দিনাজপুরে ফিরেছে। আজ বৃহস্পতিবার দিনাজপুর এম আব্দুর রহিম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ২৪ ঘন্টা সকল প্রকার প্যাথলজিক্যাল পরীক্ষা সেবা চালু করনের উদ্বোধন ও ডেঙ্গুসহ বিভিন্ন রোগীদের চিকিৎসার খোজ খবর নিয়েছেন,জাতীয় সংসদেও হুইপ ইকবালুর রহিম এমপি।

জাতীয় সংসদের হুইপ ইকবালুর রহিম এমপি বলেন, দেশের মানুষ কষ্টে থাক, অনাহারে থাক প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা তা চায় না উল্লেখ করে বলেন, দেশে এখন ডেঙ্গুর প্রকোপ বাড়ছে। মানুষ মারা যাচ্ছে। সে জন্য সকল ধরনের চিকিৎসেবা দিতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশে সারাদেশে ডেঙ্গুর ফি কমানো হয়েছে। সকল ধরনের চিকিৎসাসেবা পৌছে যাচ্ছে ঘরে ঘরে। তিনি বলেন, ডেঙ্গু জ্বর নিয়ন্ত্রনে সরকার কাজ করে যাচ্ছে। তাই এ জন্য কমানো হয়েছে ফি। শুধু চিকিৎসা সেবার উপর ভর করে চলবে না ডেঙ্গু নিয়ন্ত্রনে সকলকে সচেতন থাকতে হবে।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন দিনাজপুর এম আব্দুর রহিম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের পরিচালক ডাঃ আবু মোঃ খয়রুই কবির, এম আব্দুর রহিম মেডিকেল কলেজের অধ্যক্ষ কান্ত রায় রিমি, সহকারী অধ্যাপত ডাঃ আব্দুস ছালাম, সহকারী অধ্যাপক (মেডিসিন বিভাগ) ডাঃ নুরুজ্জামান, দিনাজপর বিএমএর সভাপতি ডাঃ ওয়ারেসহ সহ ডাঃ সুশেন, ডাঃ নাদির হোসেনসহ অন্যান্যরা।

কর্তব্যরত চিকিৎসকরা এ সময় জানান,ঢাকায় হাসপাতালে স্থান সংকুলান না হওয়ায় দিনাজপুরে ভর্তি হয়েছেন বলে তারা জানিয়েছে। এদিকে এম. আব্দুর রহিম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ডেঙ্গু রোগীদের জন্য আলাদা ওয়ার্ড খোলা হয়েছে।

হাসপাতালের পরিচালক আবু মো: খইরুল কবির জানান, ডেঙ্গু রোগী সনাক্তকরনের প্রয়োজনীয় যন্ত্র চাহিদাপত্র অনুযায়ী কিছু মন্ত্রণালয়ে প্রেরন করেছে। তিনি বলেন,ঢাকা থেকে ছেড়ে আসা বাস, ট্রাক, ট্রেনসহ সকল ধরনের যানবাহনে মশা নাশক ওষুধ স্প্রে করার জন্য স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ে চিঠি দিয়েছেন তিনি। সামনে কুরবানি উৎসবে অনেক পেশা শ্রেনির মানুষ দিনাজপুরে ফিরবে। তারা সকলেই এডিস মোশার জীবানু বহন করার সম্ভাবনা রয়েছে। তখন যেন মহামারি না হতে পাতে এ জন্য এখনই ব্যবস্থা গ্রহনের প্রস্তুতি নেয়া হচ্ছে। এই রোগ মোকাবেলায় একটি কমিটি গঠন করা হয়েছে। তারা সার্বক্ষনিক নজরদারি সহ সব ধরনের প্রযোজনীয় ব্যবস্থা নিবেন।

এদিকে এখানে চিকিৎসার ব্যাপারে সন্তোষ প্রকাশ করলেও পরীক্ষা-নিরীক্ষার ব্যবস্থা না থাকায় বাইরে বেশি অর্থ ব্যয় হচ্ছে বলে জানিয়েছেন রোগীরা।

তিনি জানান, তার অফিসের (সিভিল সার্জন অফিসের) মেডিকেল অফিসার ডা. রায়হার শরিফ ঢাকায় গিয়ে ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হয়েছিলেন। বর্তমানে চিকিৎসা নিয়ে তিনি সম্পূর্ণ সুস্থ রয়েছেন। তিনি জানান, ১৩টি উপজেলায় বার্তা পৌঁছানো হয়েছে। কারো ডেঙ্গু সন্দেহ হলে দিনাজপুরে নিয়ে আসার জন্য নির্দেশনা দেয়া হয়েছে। আক্রান্তদের বিশেষজ্ঞ চিকিৎসক দিয়ে চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে। তবে আশঙ্কাজনক কোন অবস্থা নেই।

স্বাস্থ্য বিভাগ ও প্রশাসনের কর্মকর্তাদের নিয়ে আজ ৩০ জুলাই মঙ্গলবার সকালে জেলা প্রশাসক কার্যালয়ে ডেঙ্গু নিয়ন্ত্রনে রাখা ও আক্রান্তদের করনীয় বিষয়ে বৈঠক হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

অসাধু ব্যবসায়ীদের জন্য পেঁয়াজের দাম কমছে না :ওবায়দুল কাদের

স্টাফ রির্পোটার :  ক্রয়ক্ষমতা বেড়ে যাওয়ায় চাল ও পেঁয়াজসহ নিত্যপ্রয়োজনীয় জিনিসের দাম ...

আজ বিকাল চারটায় আওয়ামী লীগের জাতীয় কমিটির সভা

স্টাফ রির্পোটার : বর্তমান ক্ষমতাসীন দল আওয়ামী লীগের জাতীয় কমিটির সভা আজ ...