Home | আন্তর্জাতিক | খুলনার পাইকগাছায় বাল্য বিবাহ বৃদ্ধি পাচ্ছে : প্রশাসন নীরব

খুলনার পাইকগাছায় বাল্য বিবাহ বৃদ্ধি পাচ্ছে : প্রশাসন নীরব

এম শিমুল খান, খুলনা প্রতিনিধি, ২৭ মার্চ, বিডিটুডে ২৪ডটকম : খুলনার পাইকগাছার বিভিন্ন এলাকায় অপ্রাপ্ত বয়স্ক ছেলেমেয়েদের বিয়ের প্রবনতা বৃদ্ধি পেয়েছে। অভিযোগে প্রকাশ, উপজেলার বিভিন্ন এলাকার উঠতি বয়সের ছেলেমেয়েদের প্রেমের সম্পর্কের জের ধরে বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হওয়ার জন্য বিভিন্ন কাজী অফিসের শরনাপন্ন হয়। এ সুযোগে এক শ্রেণীর টাউট, বাটপার, ম্যারেজ রেজিষ্ট্রার এসব অপ্রাপ্ত বয়স্ক ছেলেমেদের বয়স ১৮ বছরের কম হওয়ায় আইনগত ভাবে সমর্থন পাওয়ার জন্য এক শ্রেণীর দালালদের সহায়তায় নোটারী পাবলিকের মাধ্যমে এফিডেভিট করে বয়স বৃদ্ধি করে বিয়ের সম্মতি নিচ্ছে। এ এফিডেভিটের প্রেেিত ম্যারেজ রেজিষ্ট্রার আইনের প্রতি বৃদ্ধাঙ্গুলি প্রদর্শন করে অবৈধ ভাবে অর্থ হাতিয়ে নিচ্ছে বলে জানা গেছে। অভিভাবক মহলের অনিচ্ছা স্বত্ত্বেও ভূয়া কাগজপত্রের মাধ্যমে বিবাহ রেজিষ্ট্রিকে অজ্ঞাত কারনে মেনে নিতে হচ্ছে। অতি সম্প্রতি পাইকগাছা উপজেলার কপিলমুনি জাফর আউলিয়া ফাজেল মাদ্রাসার সহকারী শিক ও কপিলমুনি ইউনিয়ন ম্যারেজ রেজিষ্ট্রার মোঃ সাইফুলাহ শেখ মঙ্গলবার গভীর রাতে স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান ও মেম্বারদের না জানিয়ে অতি গোপনে উপজেলার নাসিরপুর গ্রামের জনৈক ব্যক্তির কপিলমুনি কলেজের ১ম বর্ষের পড়–য়া এক ছাত্রী (১৬) ও একই কলেজের ১ম বর্ষের ছাত্র (১৬) এর বিবাহ রেজিষ্ট্রি করেছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ ব্যাপারে রেজিষ্ট্রার মোঃ সাইফুলাহ শেখের সাথে মুঠোফোনে যোগাযোগ করা হলে তিনি অকপটে বিষয়টি’র সত্যতা স্বীকার করে বলেন যেহেতু বিয়ের এফিডেভিট রয়েছে, সে কারনে ২ ল টাকা দেন মোহর লিখে ছেলে মেয়ে উভয়ের ফাঁকা রেজিষ্ট্রারে স্বার করে নেয়া হয়েছে। তারা প্রাপ্ত বয়স্ক হলে বিবাহ রেজিষ্ট্রি দেখানো হবে। এটা আইন সংগত কিনা জানতে চাইলে তিনি বলেন যেহেতু বিষয়টি জানা জানি হয়ে গেছে তাই রেজিষ্ট্রি বাতিল করা হবে বলে তিনি জানান।

x

Check Also

অবশেষে বৈঠকে বসছে ভারত ও পাকিস্তান

ইন্টারন্যাশনাল ডেস্ক : দুই বছর পর সিন্ধুর জল বণ্টন নিয়ে মঙ্গলবার (২৩ মার্চ) ভারতের সঙ্গে ...

এক শটে বাংলার বাইরে ফেলব ওদের : মমতা

ইন্টারন্যাশনাল ডেস্ক : ভাঙা পা নিয়েই শেষ মুহুর্তের নির্বাচনি প্রচারে মাঠ গরম করছেন ...