ব্রেকিং নিউজ
Home | ফটো সংবাদ | খালেদা জিয়ার সাড়া পাওয়ার অপেক্ষায় রয়েছি :মনজুর আলম

খালেদা জিয়ার সাড়া পাওয়ার অপেক্ষায় রয়েছি :মনজুর আলম

স্টাফ রিপোর্টার : চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আ জ ম নাছির ১৪ দলের প্রার্থী হিসেবে চুড়ান্ত হলেও ২০ দলীয় জোটের প্রার্থীর কোন খবর নেই। তবে মহিউদ্দিনের সমর্থন নিয়ে ২০ দলীয় জোটের প্রার্থী হওয়ার অপেক্ষায় বর্তমান মেয়র মনজুর।মনজুর আলম বলেন, মেয়র হওয়ার লড়াইয়ে নামার আগ্রহ থাকলেও নির্বাচনে অংশ নেওয়ার বিষয়ে এখনো কোনো সিদ্ধান্ত নেয়নি। বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার সাড়া পাওয়ার অপেক্ষায় রয়েছি আমি।
তিনি বলেন, ২০ দলীয় জোটের প্রার্থী হতে ইচ্ছুক চট্টগ্রাম মহানগর বিএনপি নেতারা নাশকতা মামলায় আতœগোপনে রয়েছে। তাদের অনেকের পক্ষে নির্বাচন করা সম্ভব হবে না। অন্যদিকে চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি ও সাবেক মেয়র এবিএম মহিউদ্দিন চৌধুরী নির্বাচন করার ইচ্ছা প্রকাশ করেও দলীয় মনোনয়ন থেকে বঞ্চিত হয়েছেন। তাতে অনেক দিনের পুরনো ও পরীক্ষিত বন্ধু হিসেবে তার সমর্থন পাওয়া আমার জন্য সহজ হয়েছে।
তিনি আরও বলেন, ২০ দলীয় জোটের প্রার্থী চূড়ান্তের ক্ষেত্রে বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার সিদ্ধান্তই সবচেয়ে বড় ব্যাপার। নির্বাচন করব কি না সেজন্য আল্লাহর ইচ্ছা, জনগণের চাওয়া, দলের সমর্থন এবং ব্যক্তিগত ভাবনা প্রয়োজন।মনজুর আলম বলেন, পাঁচ বছর নগরবাসীর সেবার মানসে কাজ করেছি। কাজের মূল্যায়ন জনগণ করবে। নির্বাচনে অংশগ্রহণের বিষয়ে দলের সিদ্ধান্তের অপেক্ষায় আছি।
উল্লেখ্য, ১৯৯৪ সাল থেকে পরপর তিনবার নগরের ১০ নম্বর উত্তর কাট্টলী ওয়ার্ডে আওয়ামী লীগের সমর্থনে কাউন্সিলর নির্বাচিত হন মনজুর আলম। ২০০৯ সালে আওয়ামী লীগ ক্ষমতায় আসার পরের বছর চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশন নির্বাচনে তার সাবেক মেয়র নগর আওয়ামী লীগ নেতা মহিউদ্দিন চৌধুরী প্রতিদ্বন্দ্বী হয়ে মাঠে নামেন তিনি। নির্বাচনের আগে ঢাকায় গিয়ে বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার সঙ্গে দেখা করেন। নির্বাচন কাছাকাছি এলে মনজুরের প্রতি বিএনপির সমর্থন ¯পষ্ট হয়, প্রায় ৯৫ হাজার ভোটের ব্যবধানে মহিউদ্দিনকে পরাজিত করে মেয়র হন তিনি।
বিজয়ী হওয়ার বছর খানেক পর খালেদার উপদেষ্টার পদ পেলেও নগর বিএনপির রাজনীতিতে তিনি সক্রিয় নন বলে দলের নেতাকর্মীদের অভিযোগ। তবে এ বিষয়ে জানতে নগর বিএনপির শীর্ষ নেতাদের সঙ্গে একাধিকবার যোগাযোগের চেষ্টা করেও তাদের পাওয়া যায়নি।
বিএনপির কেন্দ্রীয় সহ-শ্রম বিষয়ক স¤পাদক এ এম নাজিম উদ্দিন এ প্রসঙ্গে বলেন, দিন দুয়েকের মধ্যেই সিসিসি নির্বাচনে অংশগ্রহণের বিষয়ে দলীয় সিদ্ধান্ত জানা যাবে। বিএনপি নির্বাচনের বিষয়ে ইতিবাচক অবস্থান নিলে মেয়র প্রার্থী কে হবেন সে বিষয়ে দলীয় হাই কমান্ডই সিদ্ধান্ত নেবেন।এদিকে গত বুধবার রাজধানী ঢাকা ও বন্দরনগরী চট্টগ্রামের তিন সিটি করপোরেশন নির্বাচনের তফসিল ঘোষণা করেছে নির্বাচন কমিশন। আগামী ২৮ এপ্রিল ওই তিন করপোরেশনে ভোট হবে, প্রার্থীদের মনোনায়নপত্র জমা দিতে হবে ২৯ মাচের্র মধ্যে। বৃহ¯পতিবার থেকে তিন সিটি করপোরেশনেই প্রতিদ্বন্দ্বিতায় আগ্রহীদের মাঝে মনোনয়নপত্র বিতরণ শুরু হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে সাক্ষাত ব্রিটেনের সাবেক প্রধানমন্ত্রী ক্যামেরনের

স্টাফ রিপোর্টার : প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাত করেছেন বাংলাদেশ সফররত ...

মে দিবস উপলক্ষে সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে শ্রমিক সমাবেশ করার প্রস্তুতি বিএনপির

স্টাফ রিপোর্টার : মহান মে দিবস উপলক্ষে ঐতিহাসিক সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে শ্রমিক সমাবেশ ...