Home | বিবিধ | কৃষি | কালাইয়ে বৃষ্টিতে আলুর ব্যাপক ক্ষতি

কালাইয়ে বৃষ্টিতে আলুর ব্যাপক ক্ষতি

কালাই (জয়পুরহাট) প্রতিনিধি : জয়পুরহাটের কালাইয়ে কয়েকদিন থেকে শুরু হওয়া গুড়িগুড়ি বৃষ্টির কারণে এলাকার অধিকাংশ আলুর জমিতে পানি জমেছে। ফলে মাঠ থেকে আলু ঘরে নিয়ে আসতে না পেরে চরম বিপাকে পড়েছে কৃষকরা। আলুর ক্ষেতে পানি জমে থাকার কারণে ইতিমধ্যে আলুতে পঁচন ধরেছে। বৃষ্টির কারনে ব্যাপক ক্ষতিসহ আলুর দাম না থাকার কারনে দিশেহারা হয়ে পড়েছেন উপজেলার কৃষকেরা।

সরেজমিন উপজেলার বিভিন্ন মাঠ ঘুরে দেখা গেছে, টানা তিন দিন (বৃহস্পতিবার পর্যন্ত) গুড়িগুড়ি বৃষ্টি হওয়ায় এলাকার অধিকাংশ জমিতে পানি জমে থাকতে দেখা গেছে। কৃষকরা কয়েক দিন ধরে জমি থেকে আলু উঠানোর পর তা শুকানোর জন্য জমিতেই সারি সারি করে রেখেছেন। শুকানোর পর আলু মাঠ থেকে নিয়ে গিয়ে বেশী দামে বিক্রি করবেন এমনটাই আশা করছিলেন। কিন্তু হঠাৎ করে গতমঙ্গলবার সকাল থেকে গুড়িগুড়ি বৃষ্টির কারনে এবং আলুর ক্ষেতে পানি জমে থাকায় তাদের সব আশা নিরাশ হয়ে গেছে। জমিতে পানি থাকা অবস্থায় তারা আপাতত আলু মাঠ থেকে ঘরে উঠাতে পারছেনা। অপর দিকে ৪ থেকে ৬ দিনের মধ্যে কৃষকরা যদি মাঠ থেকে তাদের আলু উঠাতে না পারে তাহলে ইরি রোপনের সময়ও পেরিয়ে যাবে বলে তারা অনেকেই দ্বিধাদ্বন্দ্বে ভূগছেন।

কালাই উপজেলার শিমরাইল গ্রামের আলু চাষী আব্দুল খালেক, আকরাম, মোহাইল গ্রামের রাব্বি, অহেত ও মাত্রাই গ্রামের রঞ্জু তাং, হিরোসহ অনেকে জানান, তারা প্রত্যকে এই বছর ৬ থেকে ৯ বিঘা করে জমিতে আলু রোপন করেছেন। ইতমধ্যে জমি থেকে কিছু আলু উঠিয়ে তা বিক্রি করে ভালো দামও পেয়েছেন। তাদের বাঁকী আলু এখনও জমিতেই আছে। পানি জমে থাকার কারণে সেগুলো আলু তারা আপাতত উঠিয়ে আনতে যাচ্ছেন না। গত তিন দিন যাবৎ গুড়িগুড়ি বৃষ্টিতে আলুর ক্ষেতে আলুর ব্যাপক ক্ষতি হয়েছে। পানি জমে থাকলে কারণ ইতিমধ্যে ব্যাপকহারে আলুতে পঁচনও ধরেছে। যদি আবহাওয়া অনুকুলে না থাকে তাহলে আলুর আশা ছেড়ে দিবেন বলে তারা জানান।

কালাই উপজেলা কৃষি সম্প্রসারণ অফিসার ফারজানা হক বলেন, কালাই পৌরসভাসহ উপজেলার পাঁচটি ইউনিয়নে এবার প্রায় ১২ হাজার হেক্টর জমিতে বিভিন্ন জাতের আলু চাষ হয়েছে। অন্য বছরের তুলনায় এবার আলুর বাম্পার ফলনসহ দামও ভাল রয়েছে। ইতমধ্যে বেশী ভাগ আলু কৃষকের ঘরে উঠেছে। কিছু নিচু জমিতে অল্প পরিমান পানি জমেছে। আর যদি বৃষ্টি না হয়, তাহলে আগামী ২/১ দিনের রোদে পানি শুকিয়ে যাবে এবং কৃষকরা তাদের আলু মাঠ থেকে ঘরে নিতে পারবেন। আগামী ২/১ দিন আকাশ মেঘলাসহ গুড়িগুড়ি বৃষ্টি হতে পারে। তবে আলুর তেমন ক্ষতি হবে না, ইরি রোপনের কোন অসুবিধা হবে না।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

জাতীয় নির্বাচনের ঘটনায় বিএনপি’র নেতাকর্মীরা হতভম্ব : মোশাররফ

স্টাফ রির্পোটার : একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের মতো ভোট ডাকাতি আগে কখনো বাংলাদেশে ...

ঘূর্ণিঝড় ইদায়; মোজাম্বিকে ১ হাজার লোকের প্রাণহানির আশঙ্কা

ইন্টারন্যাশনাল ডেস্ক : ঘূর্ণিঝড় ইদায়ের আঘাতে মোজাম্বিকে ১ হাজার লোকের প্রাণহানি ঘটতে পারে ...