Home | ব্রেকিং নিউজ | এবারই প্রথম ভোট দেবেন কুড়িগ্রামের বিলুপ্ত ছিটমহলবাসী

এবারই প্রথম ভোট দেবেন কুড়িগ্রামের বিলুপ্ত ছিটমহলবাসী

অনিরুদ্ধ রেজা, কুড়িগ্রাম : বাংলাদেশের মুলভুখন্ডে যুক্ত হওয়ার পর প্রথমবারের মতো আসন্ন একাদশ সংসদ নির্বাচনে ভোট দিবেন ভারতের মানচিএ থেকে বাংলাদেশের মানচিএে স্হান করে নেওয়া বিলুপ্ত ছিটমহলের অধিবাসীরা । বাংলাদেশে নাগরিকত্ব পাওয়ার পর স্হানীয় সরকার নির্বাচনে ভোটাধিকার প্রয়োগ করলেও এবারই প্রথম তারা সংসদ নির্বাচনে ভোট দেওয়ার সুযোগ পাচ্ছেন । দেশ পরিচালনার প্রতিনিধি নির্বাচনে নাগরিক অধিকার প্রয়োগের এমন সুযোগে নতুন এ নাগরিকদের মাঝে দেখা দিয়েছে ব্যাপক উৎসাহ –উদ্দীপনা । সারাদেশের মানুষের তারাও ভোট উৎসবে মেতে উঠেছেন । এ নিয়ে চলছে নানা শলা-পরামর্শ ও আলাপ-আলোচনা । তবে যে প্রার্থী ছিটমহলের জীবন মান উন্নয়নের অগ্রনী ভুমিকা রাখবেন তাকেই তারা ভোট দিতে চান । তারা নাগরিকত্ব পাওয়ার পর থেকে বর্তমান সরকার ব্যাপক উন্নয়ন করেছে । তাদেও জীন মান উন্নয়নে স্কুল, কলেজ, মাদ্রাসা,কালভার্ট, ব্রীজ, বিদ্যুৎ,কৃষি,স্বাস্হ, শিক্ষা,মৎস্য, সমবায় ও একটি বাড়ী একটি খামার ও আত্ননির্ভরশীল করতে যুব প্রশিক্ষন প্রদান করেছে । বিলুপ্ত ছিটমহলে গিয়ে দেখা গেছে, সেখানে চায়ের দোকান ও বাজারের আড্ডায় আসন্ন সংসদ নির্বাচনকে ঘিরে চলছে নাগরিকদের মাঝে নানা কল্পনা জল্পনা ।

কুড়িগ্রামে ফুলবাড়ী উপজেলা নির্বাচন অফিস সুএে জানা গেছে, দাশিয়ারছড়া সহ উপজেলা মোট ভোটার সংখ্যা ১ লাখ ২৬ হাজার ৪১১ জন । পুরুষ ভোটার ৬২ হাজার ৩০১ জন ও মহিলা ভোটার ৬৪ হাজার ১১০ জন ।দাশিয়ার ছড়ায় মোট ভোটার সংখ্যা ৩ হাজার ১৭২ জন । পুরুষ ভোটার ১ হাজার ৫৯০ জন ও মহিলা ভোটার ১ হাজার ৮২ জন । উপজেলায় মোট ভোট কেন্দ্র ৫০ টি । বিলুপ্ত দাশিয়ার ছড়াবাসী ৫ টি ভোট কেন্দ্রে তাদেও ভোটাধিকার প্রয়োগ করবেন । সেসব ভোট কেন্দ্রগুলো হলো –ফুলবাড়ী ইউনিয়নের পশ্চিম কুঠিচন্দ্রখানা সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়, পুর্ব চন্দ্রখান উচ্চ বিদ্যালয়, চন্দ্রখানা সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়, ভাঙ্গামোড় ইউনিয়নের আটিয়াবাড়ী ১নং সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় এবং কাশিপুর ইউনিয়নের ছড়ারপাড় সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়। এসব ভোট কেন্দ্রে তারা ভোট প্রয়োগ করবেন । দাশিারছড়ার বাসিন্দা মান্নান শেখ, ও নজরুল ইসলাম জানান, জীবনে এবারই আসন্ন একাদশ সংসদ নির্বাচনে ভোট দিতে পারবো বলে খুবই খুশি ।

ছিটমহল আন্দোলনের নেতা গোলাম মোস্তফা ও মইনুল হক জানান, ৬৮ বছর কোন নাগরিকত্ব বলে কিছুই ছিল না । শেখ হাসিনা ছিটমহল বিনিময় বিলটি বাংলাদেশের জাতীয় সংসদে পাশ করে এবং একইভাবে ভারতের সংসদে পাশ হওয়ায় আমরা আজ স্বাধীন বাংলাদেশের নাগরিক । এটি আমাদেও গর্ভ ও অহংকার ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

রাণীশংকৈল ইউএনও’র ১’শ টি হুইল চেয়ার প্রদান 

ঠাকুরগাঁওয়ের রাণীশংকৈল উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সোহেল সুলতান জুলকার নাইন কবির স্টিভ এর ...

রাণীশংকৈল রামরাই দিঘী বিনোদন পার্কের উদ্ধোধন

ঠাকুরগাঁওয়ের রানীশংকৈলের ঐতিহ্যবাহী রামরাই দিঘীতে নতুনভাবে গড়ে তোলা বিনোদন পার্কের উদ্বোধন করেন ...