ব্রেকিং নিউজ
Home | ফটো সংবাদ | আ. লীগ সরকারের অধীনে কোনো সুষ্ঠু নির্বাচন হবে না : হান্নান শাহ

আ. লীগ সরকারের অধীনে কোনো সুষ্ঠু নির্বাচন হবে না : হান্নান শাহ

a s m hannan shah meetingস্টাফ রিপোর্টার : বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য অব. ব্রিগেডিয়ার জেনারেল আ স ম হান্নান শাহ অভিযোগ করেন, আওয়ামী লীগ সব জায়গার নিজেদের লোক বসিয়ে রেখেছেন। প্রতিটি প্রতিষ্ঠানকে সরকার আজ্ঞাবহ করেছেন। তাই জনগণ তাদের আর বিশ্বাস করেন না। ফলে আমি বিশ্বাস করি, এই সরকারের অধীনে কোনো সুষ্ঠু নির্বাচন হবে না।বঙ্গবন্ধু ৩ থেকে ৪ মিনিটে যেভাবে বাকশাল কায়েম করে ক্ষমতার মেয়াদ ৫ বছর বাড়িয়েছিল বর্তমান সরকারও সেই একই ধারায় কাজ করে যাচ্ছেন। তারা গণতন্ত্র বলতে এখন নিজতন্ত্র ও পরিবারতন্ত্রকে বুঝে বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য আ স ম হান্নান শাহ।

‘বর্তমান সরকার ক্ষমতায় আসার পর কতজন সেনা সদস্যকে হত্যা এবং বরখাস্ত করা হয়েছে এর শ্বেতপত্র প্রকাশের দাবি জানিয়েছেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য অব. ব্রিগেডিয়ার জেনারেল আ  স ম হান্নান শাহ।  একই সঙ্গে তিনি প্রশ্ন ছুড়ে দিয়ে বলেন, প্রধানমন্ত্রী ঘনঘন ক্যান্টনমেন্ট সফর করে কাদের আশ্বস্ত করতে চান জাতি তা জানতে চায়।

শুক্রবার জাতীয় প্রেস ক্লাবে জাতীয়তাবাদী পেশাজীবী পরিষদ আয়োজিত ‘নিরপেক্ষ জাতীয় সংসদ নির্বাচন প্রেক্ষিত বাংলাদেশ’ শীর্ষক গোলটেবিল আলোচনায় হান্নান শাহ এসব কথা বলেন।

হান্নান শাহ বলেন, “এ সরকার ক্ষমতায় আসার পরেই বিডিআর বিদ্রোহের মতো অনাকাঙ্ক্ষিত ঘটনা ঘটলো। সেখানে দেশপ্রেমিক ৫৭ জন সেনা অফিসারকে হত্যা করা হয়েছে। সেই সময় বিদ্রোহীদের কারা বিরানি খাইয়েছে গণমাধ্যমের বরাতে জাতি তাও জেনেছে। এই সরকারের আমলে কতজন সেনা অফিসার মারা গেছে, কেন তাদের হত্যা করা হয়েছে সরকারকে সেই বিষয়ে শ্বেতপত্র প্রকাশ করতে হবে।”

তিনি বলেন, ‘কিছুদিন আগে প্রধানমন্ত্রী সিলেট সফরে গিয়েছিলেন। সেই সফরে তার সিলেট ক্যান্টনমেন্ট যাওয়ার কথা ছিল না। কিন্তু তিনি গিয়েছেন। ঢাকা ক্যান্টনমেন্টে কিছু দিন পরপর  যাচ্ছেন। মূলত তিনি ঘনঘন ক্যান্টনমেন্ট সফর করে কাদের আশ্বস্ত করতে চান, জাতি তা জানতে চায়।”

হান্নান শাহ বলেন, “সরকার ক্ষমতা এসেই জনগণের দাবি উপেক্ষা করে নির্দলীয় সরকারব্যবস্থা বাতিল করেছে। আমি সরকারকে চ্যালেঞ্জ করছি, তারা যদি তাদের আজ্ঞাবাহক নির্বাচন কমিশনের মাধ্যমে নিদর্লীয় সরকার নিয়ে গণভোটের আয়োজন করে, তাহলে ৯০ ভাগ মানুষ তত্ত্বাবধায়ক সরকারের পক্ষেই মত দেবে। কিন্তু আমরা জানি, সরকার তা কোনোদিনও করবে না।”

বিএনপির স্থায়ী কমিটির এই সদস্য অভিযোগ করে বলেন, “শেখ হাসিনা কানেও শুনেন না, চোখে দেখেন না। তিনি বিরোধীদলীয় নেতাকে চোখের ডাক্তার দেখাতে পরামর্শ দিচ্ছেন অথচ তার একজন উপদেষ্টাই আছেন যিনি তাকে চোখের চিকিৎসা করেন।”

হান্নান শাহ বলেন, “আমরা যদি ক্ষমতায় যাই তাহলে মেডিকেল বোর্ড গঠন করে শেখ হাসিনার কান ও মাথা চিকিৎসা করা হবে।”

হান্নান শাহ বলেন, “প্রধানমন্ত্রী পুত্র সজীব ওয়াজেদ জয় কিছুদিন আগে সাংবাদিকদের বলেছেন, তিনদিনের মধ্যে তিনি নাকি চমক দেখাবেন। আমরা সেই চমক দেখার অপেক্ষায় ছিলাম।  কিন্তু কিছুই দেখতে পাইনি। তবে তার বাংলাদেশ ছেড়ে নিউ ইয়র্ক গমন করার চমক দেখেছি। এখন হয়ত তিনি বিদেশ থেকে নতুন কোনো চমক নিয়ে আসবেন।” তারা গণতন্ত্র বলতে পরিবারতন্ত্রকে বুঝে বলেও মন্তব্য করেন তিনি।

সাবেক এই মন্ত্রী বলেন, “সরকার যদি জনগণের দাবি মুখে তত্ত্বাবধায়ক সরকারের অধীনে নির্বাচন না দেয় তাহলে তারা বাকশাল থেকে আবার আওয়ামী লীগ হওয়ার সময় পাবে না। সুতরাং প্রধানমন্ত্রীর উচিত আজে-বাজে কথা বলা বন্ধ করে জনগণের দাবি মেনে নেয়া। তারপরেও যদি সরকার জোর করে নির্বাচন করতে চায়, বিএনপি তা প্রতিহত করবে।”

তিনি নেতা-কর্মীদের উদ্দেশে বলেন, “বিলবোর্ড লাগিয়ে অর্থ নষ্ট করে সঞ্চয় করুন। নির্বাচনের সময় তা কাজে লাগবে। জনগণ থেকে আমরা অনেক সাড়া পাচ্ছি, এখন তা কাজে লাগাতে হবে। নরসিংদী, রংপুর ও রাজশাহী জনসভায় এর প্রমাণ দেখা গেছে।”

অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন লায়ন মু. গিয়াস উদ্দিন। এতে আরো বক্তব্য দেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক ভিসি ড. মনিরুজ্জামান মিয়া, সংগঠনের সভাপতি আবুল কাশেম হায়দার, সাধারণ সম্পাদক সৈয়দ রাশিদুল হাসান প্রমুখ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

মদনে সিএনজি অটো রিক্সা শ্রমিক ইউনিয়নের কমিটি গঠন

সুদর্শন আচার্য্য, মদন (নেত্রকোণা) ঃ নেত্রকোণা মদন উপজেলায় মিশুক, সিএনজি, অটো রিক্সা ...

মদনে হানাদারমুক্ত দিবস পালিত

সুদর্শন আচার্য্য, মদন (নেত্রকোণা)ঃ নেত্রকোণা মদনে উপজেলা প্রশাসন ও মুক্তিযুদ্ধ সংসদ কমান্ডের ...